আদালত বসিয়ে রাঙামাটিতে ফার্নিচার দোকানের নগদ টাকাসহ ১৩লাখ টাকার মালামাল লুটপাট

436

॥ স্টাফ রিপোর্টার ॥

রাঙামাটি শহরের বানিজ্যিক এলাকা কাঠালতলীতে প্রকাশ্য দিবালোকে আদালত বসিয়ে রায় কার্যকরের নামে ফার্নিচার সমিতির সেক্রেটারী এক ব্যবসায়ীর দোকান লুটপাট করেছে। বৃহস্পতিবার দুপুর ১টা থেকে ৩টা পর্যন্ত টানা তিন ঘন্টা ধরে এ লুটপাটের ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ব্যাবসায়ীগণ ও ভুক্তভোগী ফার্নিচার শো-রুমের মালিক মো. ইউসুফ জানিয়েছে, ব্যবসায়ীর অনুপস্থিতিতে রাঙামাটি শহরের প্রাণ কেন্দ্র কাঠালতলীতে অবস্থিত ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে কথিত বিচারের নামে আদালত বসিয়ে নগদ টাকাসহ ১৩লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে। তিনি চট্টগ্রাম থেকে মুঠোফোনে কান্নাজড়িত কন্ঠে এ প্রতিনিধিকে আরো বলেন, ’’আমার জীবনের অনেক সাধনার সম্পদ হলো,আমার ফার্নিচারের শো-রোমটি। আজ কোন কারণ দর্শানো ব্যতিরেখে আমার কর্মচারীদের তাড়িয়ে দিয়ে মহিউদ্দীন পেয়ারু তার দলবল নিয়ে আমার দোকানের ক্যাশ বক্স ভেঙে নগদ ৩লাখ টাকা, ৭লাখ টাকা মূল্যের বিভিন্ন ডিজাইনের ও পরিমাপের ২০আইটেম ফার্নিচার এবং ৩লাখ টাকা মূল্যের ফার্নিচার তৈরীর চিড়াই কাঠ লুট করে নিয়ে যায়। আমি আপনাদের মাধ্যমে এ জঘণ্য লুটপাটের বিচার দাবী করছি।’’

উল্লেখ্য যে, স্মরনাতীতকালে রাঙামাটি শহরে এ ধরনের ঘটনা দ্বিতীয়টি ঘটেনি। যে কারনে রাঙামাটির আসবাবপত্র ব্যবসায়ীদের মাঝে চরম আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

ফার্নিচার দোকান লুটপাটের ঘটনার বিষয়ে মতামত জানতে আসবাবপত্র ব্যাবসায়ী সমিতির সেক্রেটারী মো. মহিউদ্দীন পেয়ারুর মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তার সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

এ বিষয়ে রাঙামাটি কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. কবির হোসেন’র মতামত জানতে চাইলে, তিনি এ বিষয়ে কোন প্রকার অভিযোগ পাননি বলে জানান। অভিযোগ পেলে, প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যাবস্থা গ্রহন করবেন বলে যোগ করেন।