এমএন লারমার মৃত্যুবার্ষিকীতে নানিয়ারচরে শোক সভা

40

নানিয়ারচর প্রতিনিধিঃ

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (এমএন লারমা) নানিয়ারচর শাখা কর্তৃক মানবেন্দ্র নারায়ণ লারমার ৩৯তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে নানিয়ারচর উপজেলা কৃষি ব্যাংক সংলগ্ন মানবেন্দ্র লারমার প্রতিকৃতিতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পুষ্পস্তবক অর্পন করেন, রাঙামাটি জেলা জনসংহতি সমিতি (এমএন লারমা)’র সহ-সভাপতি ও নানিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান প্রগতি চাকমা।

রাঙামাটি জেলা পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সাধারণ সম্পাদক এলটন চাকমার সঞ্চালনায় ও সুশীল সমাজের কার্বারী প্রহলাদ চাকমার সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, নানিয়ারচর সদর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান বাপ্পি চাকমা।

এসময় জনসংহতি সমিতির সাংগঠনিক সম্পাদক রুপম দেওয়ান, অর্থ পরিচালক জ্ঞান জ্যোতি চাকমা, রাঙামাটি সদর ইউনিট কমিটির অর্থ পরিচালক অবিরাম চাকমা, মহালছড়ি থানা শাখা যুব সমিতির সভাপতি রতন চাকমা, ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিক ইউনিট পরিচালক জ্ঞান চাকমাসহ জেলা ও থানা অর্থ কমিটি, নানিয়ারচর মহিলা সমিতি, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ ও নানিয়ারচর ইউপিডিএফ (গণতান্ত্রিক) কমিটির সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে শোক সভায় বক্তব্যে প্রগতি চাকমা বলেন, এমএন লারমার আদর্শে উজ্জীবিত হতে হবে। তবেই পাহাড় থেকে হিংসা, হানাহানি, রক্তপাত বন্ধ হবে। পার্বত্যাঞ্চল থেকে রক্তপাত বন্ধে ও শান্তিচুক্তি বাস্তবায়নে সরকারকে উদ্যোগ নিতে হবে।

সাংগঠনিক সম্পাদক রুপম দেওয়ান বলেন, আমরা পাহাড়ি জনগণ মুক্তি চাই। রক্তপাত, হানাহানি ও ভ্রাতৃ সংঘাত আর চাইনা। আমি মনে করি সরকার শতভাগ শান্তিচুক্তি বাস্তবায়ন করলে পাহাড়ের সকল সমস্যার সমাধান হবে।