কল্পনা চাকমা অপহরণ বিচারের দাবীতে খাগড়াছড়িতে ছাত্র-যুব-নারী সমাবেশ:

423

স্টাফরিপোর্ট- ১১ জুন ২০১৮, দৈনিক রাঙামাটি (সংবাদ বিজ্ঞপ্তি):  চিহ্নিত অপহরণকারী লে. ফেরদৌস গং’কে রক্ষা করতেই সরকার দীর্ঘ ২২ বছরেও কল্পনা চাকমা অপহরণের বিচার করেনি। উপরন্তু এ ঘটনা ধামাচাপা দিতে কল্পনার ভাইদের হয়রানিসহ নানা ষড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে। কল্পনা চাকমা অপহরণের ২২তম বার্ষিকী উপলক্ষে গত বৃহস্পতিবার ১০ জুন ২০১৮, খাগড়াছড়িতে তিন সংগঠনের আয়োজিত ছাত্র-যুব-নারী সমাবেশে বক্তারা এ অভিযোগ করেন।
“সেনা পৃষ্টপোষকতায় হামলা, মামলা, খুন, অপহরণ ও রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস বন্ধ কর” এই শ্লোগানে কল্পনা চাকমার চিহ্নিত অপহরণকারী লে: ফেরদৌস ও সালেহ আহম্মেদ গং’দের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতেবৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ (পিসিপি), হিল উইমেন্স ফেডারেশন (এইচডবিøউএফ) ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম (ডিওয়াইএফ)-এর খাগড়াছড়ি জেলা শাখার উদ্যোগে খাগড়াছড়ি সদরের স্বনির্ভরে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়। সমাবেশে তিন শতাধিক ছাত্র-যুব-নারী অংশগ্রহণ করেন।

সকাল ১০টায় ইউনাইটেড পিপল্স ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ)-এর কার্যালয়ের সামনে থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি জেলা পরিষদ, নারাঙহিয়া রেড স্কোয়ার, উপজেলা পরিষদ এলাকা হয়ে চেঙ্গী স্কোয়ার প্রদক্ষিণ করে স্বনির্ভর বাজারের শহীদ অমর বিকাশ চাকমা সড়কে এসে প্রতিবাদ সমাবেশ করে। হিল উইমেন্স ফেডারেশনের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক চৈতালী চাকমার সভাপতিত্বে ও পিসিপি খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অমল ত্রিপুরার সঞ্চালনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক রতন স্মৃতি চাকমা ও পিসিপি খাগড়াছড়ি জেলা শাখার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তপন চাকমা প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ১৯৯৬ সালের ১২ জুন রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার নিউ লাল্যাঘোনার নিজ বাড়ি থেকে সেনা কর্মকর্তা লে. ফেরদৌস ও তার সহযোগীদের দ্বারা অপহৃত হন হিল উইমেন্স ফেডারেশনের তৎকালীন সাংগঠনিক সম্পাদক কল্পনা চাকমা। দীর্ঘ ২২ বছরেও তার কোন খোঁজ পাওয়া যায়নি।

বার্তা প্রেরক- সমর চাকমা,
দপ্তর সম্পাদক- পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, খাগড়াছড়ি জেলা শাখা।

পোস্ট করেন- শামীমুল আহসান, ঢাকা ব্যুরো প্রধান।