কাউখালীতে প্রধানমন্ত্রীর উপহার পেলো ৬৯ ভূমিহীন পরিবার

340

॥ মোঃ ওমর ফারুক ॥

মুজিব বর্ষ উপলক্ষে ভুমিহীন-গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ প্রদান কার্য্যক্রমের ২য় পর্যায়ের কাউখালী উপজেলায় ৬৯টি পরিবারকে রোববার সকাল ১০টায় ঘরের চাবি ও দলিলপত্র প্রদান প্রদান করা হয়েছে। আশ্রায়ন প্রকল্পের ঘর হস্তান্তরের জন্য প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সের অংশগ্রহণের নিমিত্তে উপজেলা হলরুমে আয়োজন করা হয় এক অনাঢ়ম্বর অনুষ্ঠানের।

কাউখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজমুন আরা সুলতানার সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি ছিলেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অংসুই প্রু চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা ভাইস-চেয়ারম্যান নিংবাইউ মারমা, ভাইস-চেয়ারম্যান অংপ্রু মারমা, আওয়ামীলীগ কাউখালী উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক মোঃ এরশাদ সরকার, কাউখালী থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মোঃ শহিদ উল্যা পিপিএম।

এ ছাড়া অনষ্ঠানে অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বেতবুনিয়া ইউপি চেয়ারম্যান খইচাবাই তালুকদার, কলমপতি ইউপি চেয়ারম্যান ক্যাজাই মারমা, ফটিকছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান ধনকুমার চাকমা, উপজেলা শিক্ষা অফিসার মানস মুকুল চাকমা, উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার মোঃ শাহাবুদ্দিন হোসাইন, উপজেলা ইনস্ট্রক্টর মোঃ গিয়াস উদ্দিন,কাউখালী থানার পুলিশ পরিদর্শক মোঃ আব্দুল হালিম,উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কার্য্যালয়ের প্রতিনিধি প্রদীপন দেওয়ান সহ উপজেলা পরিষদের সকল কর্মকর্তা, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যাক্তি বর্গ, স্থানীয় গণ মাধ্যম কর্মি,রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ এবং সুশীল সমাজের প্রতিনিধি সহ উপজেলার ভুমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের সদস্য সদস্যা বৃন্দ।

প্রধান অতিথি অংসুই প্রু চৌধুরী বলেন, বর্তমান সরকার জন বান্ধব সরকার। মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ যে মহৎ মনের পরিচয় দিয়েছেন তা সত্যি বিরল। কারন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এ দেশের জণগনের দুঃখ কষ্ট বুযেন সে জন্যই প্রধানমন্ত্রী এ ধরনের কর্মসুচি হাতে নিয়েছেন বলে তিনি জানান। তিনি আরো বলেন বর্তমান সরকার ২০২১ খ্রিঃ মধ্যে আরো ১ লক্ষ ঘর ভুমিহীনদের দিবেন। ২০৪১ খ্রিঃ এ দেশ হবে উন্নয়নশীল রাষ্ট্র বলে তিনি তার বক্তব্যে বলেন।

আলোচনা সভা শেষে প্রধান অতিথি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার ঘর উপজেলার চার ইউনিয়নের মোট ৬৯টি ঘর,১ম পর্যায় ১০টি ঘর, ২য় পর্যায় ৫৯টি ঘরের দলিল কাগজ পত্র উপজেলার ভুমিহীন-গৃহহীন পরিবারের সদস্যদের হাতে তুলে দেন।