খাগড়াছড়ির হত্যাকান্ডে পুলিশের মামলা: অবরোধ পালিত

356

স্টাফরিপোর্ট- ২০ আগস্ট ২০১৮, দৈনিক রাঙামাটি:  পার্বত্য জেলা খাগড়াছড়ির স্বনির্ভর এলাকায় প্রতিপক্ষের গুলিতে তিন ইউপিডিএফ কর্মীসহ ৬ জন নিহতের ঘটনায় দু’দিন পর সদর থানায় মামলা করেছে পুলিশ। মামলায় ১৫-২০ অজ্ঞাত ব্যক্তিকে আসামি করা হয়েছে। মামলা দায়েরের বিষয়টি নিশ্চিত করে খাগড়াছড়ি সদর থানার পুলিশ। গত দুই দিনেও নিহতের পরিবারগুলোর পক্ষ থেকে কোনো মামলা না করায় সোমবার সকালে পুলিশ বাদী হয়ে ১৫-২০ অজ্ঞাত ব্যক্তিকে আসামি করে মামলা করেছে। খাগড়াছড়ি সদর থানার মামলা নং-১২।

এদিকে এ ঘটনার পর খাগড়াছড়ির আইন-শৃঙ্খলা উন্নয়নসহ জনমনে আস্থা ফেরাতে গত রোববার দুপুরের পর থেকে বিশেষ অভিযান শুরু করেছে যৌথ বাহিনী। পুলিশ জানিয়েছেন অবৈধ অস্ত্রে উদ্ধারে সপ্তাহব্যাপী চলবে এই অভিযান।

অপরদিকে এ হত্যাকান্ডে তদন্তে খাগড়াছড়ির অতিরিক্তি জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবু ইউছুফকে প্রধান করে গঠিত তদন্ত কমিটিকে প্রত্যাখ্যান করে ঘটনার নিরপেক্ষ বিচার এবং বিচার বিভাগীয় তদন্তের দাবি জানিয়েছে ইউপিডিএফ সমর্থিত চারটি সংগঠন।

গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় সহসাধারণ সম্পাদক বরুণ চাকমা স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের সভাপতি অংগ্য মারমা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি বিনয়ন চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের সভানেত্রী নিরূপা চাকমা ও ইউনাইটেড ওয়ার্কার্স ডেমোক্রেটিক ফ্রন্টের সভাপতি সচিব চাকমা এ দাবি জানানো হয়।

অপর এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে পাহাড়িছাত্রপরিষদ (পিসিপি) খাগড়াছড়ি জেলা শাখার দপ্তরসম্পাদক, সমর চাকমা জানান আজ ২০ আগস্ট স্বনির্ভর ও পেরছড়ায় সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে পিসিপি নেতাসহ ৭জনকে হত্যার প্রতিবাদে খাগড়াছড়ি জেলায় ইউপিডিএফ সমর্থিত তিন সংগঠনের ডাকে আধাবেলা সড়ক অবরোধ পালিত হয়েছে। অবরোধ চলাকালে দূরপাল্লার কোন যানবাহন চলাচল করেনি। উপজেলাগুলোর অভ্যন্তরীণ সড়কেও যান চলাচল বন্ধছিল।

পোস্ট করেন- শামীমুল আহসান, ঢাকা ব্যুরো প্রধান।