চেয়ারম্যানের দূর্নীতির বিরুদ্ধে কথা বলে হাসপাতালে ইউপি সদস্য

405

॥ স্টাফ রিপোর্টার ॥

রাঙামাটির বরকল উপজেলার ভূষণছড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. মামুনুর রশিদের দূর্নীতির বিরুদ্ধে কথা বলায় ৮নং ওয়ার্ডের মেম্বার আব্দুল জলিল চেয়ারম্যানের সমর্থকদের দ্বারা হামলার শিকার হয়েছেন। ভূক্তভুগী ইউপি সদস জলিল জানান তিনি সম্প্রতি “অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান প্রকল্পে” চেয়ারম্যান মামুনের আত্মীয়দের নাম অন্তর্ভূক্তি ও অদৃশ্য ব্যক্তিদের নাম ব্যবহার করে অর্থ আত্মসাৎ চেষ্টার বিষয়ে ইউএনওকে মৌখিকভাবে অভিযোগ করেন, এর পরই তিনি হামলার শিকার হন।

তিনি জানান, বুধবার ভূষণছড়া বাজারে ৭নং ওয়ার্ড মেম্বার মো. আবু সাঈদের উপস্থিতিতে নূর নবী, আমির হোসেনসহ চেয়ারম্যান মামুনের অন্তত ৪০ জন সমর্থক ইউপি সদস্য আব্দুল জলিলের উপর অতর্কিত হামলা চালায় বলে অভিযোগ উঠে। হামলা কারীরা পালিয়ে যাওয়ার পর স্থানীয়রা জলিলকে উদ্ধার করে, প্রথমে ২৫ বিজিবি ক্যাম্প এরপর বরকল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক জলিলকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাঙামাটি জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করে। হামলার ঘটনা ভিডিও করে রাখে এলাকাবাসী। এবিষয়ে ৭নং ওয়ার্ড মেম্বার আবু সাঈদ জানান, আমাদের মধ্যে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।

চেয়ারম্যান মামুনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমি যতদূর জেনেছি বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণ কেন্দ্র করে আবু সাঈদ মেম্বার ও ছাত্রলীগের নূর নবীর সাথে জলিলের হাতাহাতি হয়। তার বিরুদ্ধে প্রকল্পে আত্মীয় করণের বিষয়ে ইএনওর কাছে জলিলের মৌখিক অভিযোগের বিষয়টি স্বীকার করেন তিনি।
বরকল থানার ওসি জানান- বিষয়টি সম্পর্কে আমরা অবগত হয়েছি কিন্তু এবিষয়ে কেউ এখনও লিখিত অভিযোগ দাখিল করেনি।