তামাক ও সিগারেট সেবীদের করোনায় মৃত্যু ঝুঁকি সবচেয়ে বেশিঃ ডিসি মামুন

435

॥ শহিদুল ইসলাম হৃদয় ॥
“তামাক কোম্পানির কূটচাল রুখে দাও, তামাক ও নিকোটিন থেকে তরুণদের বাঁচাও” প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে রোববার (৩১ মে) সকালে  জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে বিশ্ব তামাকমুক্ত দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভার প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাঙামাটির জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ একথা বলেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে চলমান দুর্যোগ করোনা ভাইরাসে প্রতিদিন দেশে হাজারো রোগী শনাক্ত হচ্ছে তার মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন অনেকেই। এই ভাইরাসের কবলে পড়া করোনা আক্রান্ত রোগীর শরীরে তামাক বা নিকোটিনে আসক্ত কেউ থাকে তাহলে তার শরীরের রোগটি ভয়ঙ্কর রুপ ধারণ করতে সক্ষম হয় এবং মৃত্যুর ঝুঁকিও বেড়ে যায়। এছাড়াও তামাক মানব শরীরের জন্য খুবই ক্ষতিকর। তামাক বা নিকোটিনের ধোঁয়া সেবনের কারণে শরীরে বিভিন্ন রোগের সৃষ্টি হয় যেমনঃ ক্যান্সার, ফুসফুসের রোগ, হৃদ রোগ সহ অন্যান্য মরণ ঘাতি রোগ হয়ে থাকে। তাই আমাদের সিগারেট বা তামাক বর্জন করা অত্যন্ত প্রয়োজন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) শিল্পী রাণী রায়, নেজারত ডেপুটি কালেক্টর উত্তম কুমার দাশ, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার বাঘাইছড়ি সার্কেল মোঃ আব্দুল আউয়াল চৌধুরী, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ খোরশেদ আলম, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মিজানুর রহমান শরীফ, ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচালক রতন কুমার নাথ, রাঙামাটি প্রেস ক্লাবের সভাপতি সাখাওয়াৎ হোসেন রুবেল সহ জেলা প্রসাশকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও বিভিন্ন সরকারি দপ্তরের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।