পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পূর্ণমন্ত্রী হলেন বীর বাহাদুর উশৈসিং

520

 

স্টাফরিপোর্ট- ৬ জানুয়ারি ২০১৯, দৈনিক রাঙামাটি:

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বান্দরবান আসনে থেকে আওয়ামী লীগ প্রার্থী হিসেবে ষষ্ঠ বার জয়লাভ করার পর বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপিকে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পূর্ণমন্ত্রী করা হলো। রবিবার বিকেলে মন্ত্রীপরিষদ সচিব শফিউল আলম সাংবাদিক সম্মেলন করে নতুন মন্ত্রীসভার নাম ঘোষণা করেন। এতে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পূর্ণমন্ত্রী হিসেবে বীর বাহাদুরের নাম ঘোষণা করা হয়। এরই মাধ্যমে সকল জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে তিনই পার্বত্য জেলার সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ আসনে বসলেন। এর আগেই রবিবার সকালে মন্ত্রী পরিষদ বিভাগ থেকে ফোন করে বীর বাহাদুরকে পূর্ণমন্ত্রীর পদমর্যাদায় পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী করা হচ্ছে বলে নিশ্চিত করা হয়। সোমবার তিনি নতুন সরকারের অন্য মন্ত্রীদের সাথে বঙ্গভবনে শপথ গ্রহণ করবেন। এর আগে তিনি একই মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী ছিলেন।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী সাচিং প্রু জেরীকে ৮৫ হাজার ২শত ৪৭ ভোটে পরাজিত করে বান্দরবান আসনে থেকে ৬ষ্ঠ বারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন তিনি। গত ৩০শে ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত নির্বাচনে বীর বাহাদুর উশৈসিং মোট ভোট পেয়েছেন ১ লাখ ৪৩ হাজার ৯শত ৬৬ ভোট। অন্যদিকে বিএনপি সমর্থিত সাচিং প্রু জেরী মোট ভোট পেয়েছেন ৫৮ হাজার ৭শত ১৯ ভোট। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিপুল ভোটে বান্দরবানের সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন বীর বাহাদুর উশৈসিং। এছাড়া, ১৯৯১, ১৯৯৬, ২০০১, ২০০৮, ২০১৪ সালে তিনি সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

বীর বাহাদুর ২০০২ সালে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এবং জাতীয় সংসদের আওয়ামী লীগের সংসদীয় দলের হুইপ নির্বাচিত হন। সাংগঠনিক সম্পাদকের দায়িত্ব পালনের সময় তিনি বৃহত্তর চট্টগ্রাম বিভাগে সংগঠনকে সুসংগঠিত করেন। ১৯৮৯ সালে তিনি বান্দরবান পার্বত্য জেলা স্থানীয় সরকার পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হন। ১৯৯৭ সালের ২ ডিসেম্বর ঐতিহাসিক শান্তিচুক্তির আগে এ সংক্রান্ত সংলাপ কমিটির অন্যতম সদস্য এবং তৎকালীন সরকারের বেসামরিক বিমান ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়াও ১৯৯৮ সালে উপমন্ত্রীর পদমর্যাদায় প্রথমবারের মতো এবং ২০০৮ সালে প্রতিমন্ত্রীর পদমর্যাদায় দ্বিতীয় বারের মতো পার্বত্য চট্টগ্রামে উন্নয়ন বোর্ড, রাঙ্গামাটির চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেন।

তিনি পূর্ণমন্ত্রী হওয়ায় বান্দরবানবাসীর মধ্যে আনন্দ-উল্লাস দেখা গেছে। বিশেষ করে বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগ ও অংগ সংগঠনের নেতা কর্মীদের মাঝে।

পোস্ট করেন- শামীমুল আহসান, ঢাকা ব্যুরো প্রধান