প্রশাসনের ১৪৪ ধারা জারি, রোববার কাপ্তাই শান্ত ছিল

158

কাপ্তাই প্রতিনিধি

কাপ্তাইয়ে একইস্থানে বিএনপি-ছাত্রলীগের সমাবেশ ঘোষনাকে কেন্দ্র করে রোববার সকাল ৬টা থেকে বড়ইছড়ি সদরে ১৪৪ ধারা জারি করে উপজেলা প্রশাসন। রোববার সকালে কাপ্তাই উপজেলার সদরে গিয়ে দেখা যায়, বিএনপি কিংবা ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগের অঙ্গ সংগঠন ছাত্রলীগের কোন সমাবেশ হচ্ছেনা।

একইসাথে কাপ্তাই থানার পুলিশ সদস্যরা ভোর থেকেই মাঠে রয়েছে। এছাড়া কাপ্তাইয়ের বড়ইছড়ি সদরের পরিস্থিতি, যানচলাচল সহ সবকিছু অনেকটা স্বাভাবিক রয়েছে। কোন অপ্রীতিকর ঘটনার খবর কিংবা পরিস্থিতি হয়নি।

এবিষয়ে কাপ্তাই উপজেলা বিএনপির সম্পাদক ইয়াসিন মামুন বলেন- আমাদের কেন্দ্রঘোষিত কর্মসূচীকে বাধাগ্রস্থ করতে আওয়ামীলীলীগ হীন চক্রান্তের অংশ হিসেবে একই স্থানে পাল্টা কর্মসূচী ঘোষণা করেছে। তিনি এ ঘটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বলেন জেলার নেতৃবৃন্দের সাথে আলোচনা করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

অপরদিকে কাপ্তাই উপজেলা ছাত্রলীগ সাবেক সভাপতি এম নুর উদ্দীন সুমন ও সম্পাদক আলিব রেজা লিমন বলেন- ধারাবাহিক কর্মসূচীর অংশ হিসাবে রবিবার উপজেলা সদর ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ কর্মসূচীর ডাক দিই। কিন্তু একই জায়গায় বিএনপি সমাবেশ ডাকায় প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করে। আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয়ে আজকে সমাবেশ করছি না।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুনতাসির জাহান জানান- দুইটি বৃহত্তর দলের একই স্থানে একই সময়ে সমাবেশ ডাকায় অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে এবং জনমনে আতঙ্ক দূর করতে কাপ্তাই উপজেলা প্রশাসন ফৌজদারি কার্যবিধীর ১৮৯৮ এর ১৪৪ ধারা মোতাবেক সকাল ৬ টা হতে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত জরুরী অবস্থা ঘোষণা করেছে।