বঙ্গবন্ধু তনয়া পিছিয়ে পড়া দেশকে উত্তরণের পথ দেখিয়েছেন: এমপি চিনু

322

॥ মঈন উদ্দীন বাপ্পী ॥

আ’লীগ দেশের গনমানুষের কথা বলে, দেশের উন্নয়নে কাজ করে। রোববার বিকেলে জেলা মহিলা আ’লীগের আয়োজনে দলীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্য তিনি এসব কথা বলেন।

এমপি চিনু বলেন, সাধারণ মানুষের উন্নয়নে সরকার বদ্ধপরিকর। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ খাদ্য স্বয়ং সম্পন্ন। দেশ সারা বিশ্বে সুনাম কুড়াচ্ছে।  ভিশন ২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের দেশ এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করার জন্য সরকার দিনরাত কাজ করে যাচ্ছে। সমতল থেকে পার্বত্য চট্টগ্রাম, নারী-শিশু থেকে শিক্ষা সকল উন্নয়নের  ক্ষেত্রে সরকার অসামান্য অবদান রাখছে বলে তিনি জানান।

এমপি চিনু বলেন, পিতাকে হারিয়ে আমরা এক অসহায় জাতিতে পরিণত হয়েছিলাম। হাজার বছর পিছনে চলে গেছি। আর পিছে চলা থেকে যিনি আমাদের উত্তোরণের পথ দেখিয়ে দিচ্ছেন তিনি হলেন, বঙ্গবন্ধুর তনয়া জননেত্রী শেখ হাসিনা। যার চতুরতার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের স্বর্ণ শিখরে পৌছে গেছে।

জাতীয় শোক দিবসে রাঙামাটি মহীলা আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীদের এ শপথ নেয়ার আহবান জানিয়ে তিনি আরো বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের অবৈধ অস্ত্রধারীদের দাঁতভাঙ্গা জবাব দিয়ে আগামী জাতীয় নির্বাচনে রাঙামাটি আসনে দীপংকর তালুকদারকে জয়যুক্ত করে শেখ হাসিনাকে উপহার দেয়া হবে। তিনি বলেন, বক্তব্য দিয়ে ঘরে বসে আওয়ামীলীগকে নির্বাচনে জয় করা যাবে না। জনগণ এখন বেশি সচেতন। দলকে জয়যুক্ত করতে হলে সরকারের উন্নয়নের বার্তা ঘরে ঘরে পৌঁছে দিতে হবে।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে রাখেন, জেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দীন বাবুল, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পদক অভয় প্রকাশ চাকমা, জেলা পরিষদের সদস্য ও সদর থানা আ’লীগের সদস্য সাধন মণি চাকমা, জেলা পরিষদের সদস্য মনোয়ারা জাহান আক্তার। স্বাগত বক্তব্য রাখেন, জেলা মহিলা আ’লীগের সহ-সভাপতি ঝর্ণা খীসা।

এমপি চিনু ক্ষোভের সাথে বলেন, আমার সংগঠনের সকল কাজে দলের সকলকে আমন্ত্রণ করেছিলাম কিন্তু দুর্ভাগ্য আমার। এমচি চিনু জানান, দলের জন্য সকল ভেদাভেদ ভুলে গিয়ে আমাদের সকলে মিলে মিশে কাজ করে যেতে হবে। তাহলে সংগঠন শক্তিশালী হবে।