বান্দরবানে বন্দুকযুদ্ধে এক ইয়াবা কারবারি নিহত ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধার

52

॥ বান্দরবান প্রতিনিধি ॥
বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম ইউনিয়নের বাইশফাড়ি সীমান্তে বিজিবি’র সাথে বন্ধুকযুদ্ধে মোঃ আদহাম (২৩) নামের এক রোহিঙ্গা ইয়াবা কারবারি নিহত এবং বিপুল ইয়াবাসহ অস্ত্র-গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। বুধবার ভোররাতে বাংলাদেশ মায়ানমার সীমান্তের ৩৫-৩৬ পিলারের নিকটবর্তী এলাকা বাইশফাঁড়ি এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় আহত হয়েছে ২বিজিবি সদস্য। নিহত রোহিঙ্গা যুবকের নাম আদহাম (২১)। সে বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তুমব্রু কোণার পাড়া শূণ্য রেখায় আশ্রিত শরণার্থী। তার পিতার নাম আবুল হাসেম।

পুলিশ বিজিবি সূত্রে জানা গেছে, গতকাল বুধবার গভীর রাতে মিয়ানমার থেকে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা নিয়ে আসছে মাদককারবারীরা এমন সংবাদের ভিত্তিতে ৩৪ বিজিবি নিয়ন্ত্রিত বাইশফাঁড়ি বিওপির দুটি অপারেশন দল টহলে নামে। ভোররাতে ঘুমধুম ইউনিয়নের বাইশফাঁড়ি মক্করটিলা নামক এলাকায় ১০-১২ জনের একটি মাদকপাচারকারী দল দেখতে পায় বিজিবি।

বিজিবির টহল দল মাদককারবারীদের চ্যালেঞ্জ করলে তারা বিজিবিকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়ে। এসময় বিজিবির দুটি টিম অপরাধীদের পাল্টা গুলি ছুঁড়লে মাদকারবারীরা গহীণ বনে পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে মাদককারবারী আদহাম (২১) কে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে পার্শ্ববর্তী উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়।

ঘটনাস্থল থেকে ৪০ হাজার পিচ নিশিদ্ধ ইয়াবা, ১টি দেশীয় তৈরী একনলা বন্দুক, কার্তুজ ২রাউন্ড উদ্ধার করে বিজিবি। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন কক্সবাজার ৩৪বিজিবির অধিনায়ক লে.কর্ণেল আলী হায়দার আজাদ।

এদিকে এই বিষয়ে নাইক্ষ্যংছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকতা (ওসি) মুহাম্মদ আলমগীর হোসেন জানান- নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার দুর্গম ঘুমধুমের বাইশফাঁড়িতে গুলাগুলিতে দুই বিজিবি সদস্য আহত হওয়ার খবর শুনেছি। ওই ঘটনায় ৪০ হাজার ইয়াবা, ১টি বন্দুক ও ২রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার হয়।