বিতার্কিক তামিমের প্রথম উপন্যাস ‘দুর্বিপাকের ঘূর্ণি’ মোড়ক উন্মোচন: এটিএন বাংলা নির্মাণ করবে টেলিফিল্ম

426

স্টাফ রিপোর্ট- ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৭, দৈনিক রাঙামাটি (প্রেস বিজ্ঞপ্তি): মানুষের জীবনের প্রতিটি স্তর প্রতিকূলতা আর বিস্ময়ে ঠাঁসা । সমাজ, সংসার, আর জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে মানুষের সংগ্রাম আর সমন্বয় অত্যন্ত জরুরী। কোথাও কোন বাঁধা তৈরী হলে সমাজ থেকে আমরা বিচ্যুত হয়ে পড়ি।তাই আমাদের সমাজ কাঠামোতে সামাজিক মুল্যবোধ জোরদার করা দরকার।

গত কাল শনিবার বিকেলে কাওরানবাজারের এটিএন বাংলার কাযালয়ে তরুণ কথা সাহিত্যিক ডিবেট ফর ডেমোক্রেসি‘র পরিচালক মেহেদী হাসান তামিমের ‘দুর্বিপাকের ঘূর্ণি’ উপন্যাসের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে অতিথিরা এসব কথা বলেন।
এতে প্রধান অতিথি ছিলেন, এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজে চেয়ারম্যান ড. মাহফুজুর রহমান। সভাপতিত্ব করেন ডিবেট ফর ডেমোক্রেসিদর চেয়ারম্যন হাসান আহমেদ চৌধুরী কিরণ। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন কর কমিশনার আতিয়ান নাহার এবং কর কমিশনার কবি মাহবুবা হোসেইন ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড মাহফুজুর রহমান বলেন সৃজনশীল সকল কর্মকাণ্ডে এটিএন বাংলা সবার আগে। দুর্বিপাকের ঘূর্ণি উপন্যাসের মাধ্যমে লেখক মেহেদী হাসান তামিম আমাদের সমাজব্যবস্থার সার্বিক চিত্রটি ফুটিয়ে তুলেছেন। তিনি বলেন, আজকের তরুণ সমাজ বইবিমুখ। তাই তাদের বই পাঠে উৎসাহিত করার লক্ষ্যে সব ধরণের মাধ্যমে তুলে দিতে হবে।  তিনি উপন্যাটির সাফল্য কামনা করেন এবং অবিলম্বে উপন্যাসটির ঘটনা অবলম্বনে এটিএন বাংলার নিজস্ব অর্থায়ণেএকটি টেলিফিল্ম নির্মাণের ঘোষণা দেন।

সভাপতির বক্তব্যে জনাব হাসান আহমেদ চৌধুরী কিরণ বলেন, আমাদের সমাজ ব্যবস্থা ও ধর্মীয় অনুশাসনকে এই উপন্যাসে মূল বিষয়বস্তু হিসেবে উপস্থাপন করে লেখক সমাজের প্রতিচ্ছবি তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। তিনি বলেন আমাদের সমাজে আজ যেসকল শঙ্কা ও সংকট সৃষ্টি হচ্ছে তা নৈতিক-শিক্ষা এবং পারিবারিক মূল্যবোধ ও সামাজিক অনুশাসন প্রতিষ্ঠার মধ্য দিয়েদূর করা সম্ভব ।গল্প বলার ধরণ এবং সমাজের বিভিন্ন ঘটনাকে সুক্ষও রসাত্মক বর্ণনার মাধ্যমে পাঠকের সামনে তুলে ধরার জন্য এবছরে গ্রন্থমেলায় প্রকাশিত বইগুলোর মধ্যে ‘দুর্বিপাকের ঘূর্ণি’ অন্যতম দাবিদার বলে তিনি মন্তব্য করেন। বইয়ের কয়েকটি বিষয় আলোচনা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আজকের কিশোর-তরুণরা যাতে জঙ্গীবাদী ঘটনার সাথে সম্পৃক্ত না হয় এবং একই সাথে এসব ঘটনার সাথে সম্পৃক্ত না হয়েও যেন কেউ ঘটনার শিকার না হয়, বইটিতে সেবিষয়গুলো তুলে ধরলে সমাজের সার্বিক চিত্রটি আরো বেশি ফুটে উঠতো।

উপন্যাসটির বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন প্রাক্তন কর কমিশনার জনাব হুমায়ূন কবির ভূঁইয়া ও মুক্তভাষ ফাউন্ডেশনের উপদেষ্টা কবি শাহেদ মন্তাজ। আরো উপস্থিত ছিলেন ডিবেট ফর ডেমোক্রেসি‘র পরিচালক ড. এস এম মোর্শেদ, এটিএন বাংলার ভাইস-প্রেসিডেন্ট তাশিক আহমেদ প্রমূখ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ন্যাশনাল ডিবেট ফেডারেশনের মহাসচিব মোস্তাফিজুর রহমান খান।

পোস্ট করেন- শামীমুল আহসান, ঢাকা ব্যুরো প্রধান।