মুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার আবুল হোসেন আবুর দুটি কবিতা

385

‘স্বাধীনতা সংগ্রাম’
তারিখ : ১২-০৭-২০১২

স্বাধীনতা সংগ্রাম তুমি দিয়েছ ভূখন্ড তাই আমরা গর্বিত,
মুক্তিযুদ্ধে যারা জীবন বাজি রেখে করলো যুদ্ধ তারাই আজ লুণ্ঠিত!
স্বাধীনতা তুমি প্রদীপ জ্বালিয়ে যাদের করেছ মহান,
মুক্তিযুদ্ধে তারাই মানুষ হত্যা করে দেশকে করেছিল শ্মশান!
স্বাধীনতা তুমি অগাধ সম্পদের মালিক বানিয়ে যাদের জীবনকে করেছ ধন্য,
মুক্তিযুদ্ধের সময়ে সম্পদ লুট করে তারাই বাংলাকে করেছিল শূণ্য!
স্বাধীনতা তুমি যাদেরকে বানিয়েছ ধনকুবের, করেছ নিরাপদ,
মুক্তিযুদ্ধে তারাই লুটপাট করেছিল সাধারণ মানুষের সম্পদ!
৭১ এ তুমি বাংলার মানুষকে করেছিলে ঘর-বাড়ী ভিটেমাটি ছাড়া,
আজকের বাংলাদেশে তাই স্বাধীনতা সংগ্রামের মুক্তিযোদ্ধারা সর্বহারা!
স্বাধীনতা তুমি কেড়ে নিয়েছ ৩০ লক্ষ নর-নারীর জীবন,
তাইতো বাংলার কোটি কোটি মানুষ শোকে বিহ্বল তরুণ!
স্বাধীনতা তুমি সময়ের বিবর্তনে মুক্তিযোদ্ধাদের করেছ ভিক্ষুক,
এমনতো কথা ছিলনা বঙ্গবন্ধু- মুক্তিযুদ্ধের শিক্ষক!
স্বাধীনতা তুমি মিশে আছ বাংলার মানুষের জীবন মরণে,
রাষ্ট্র কি দেখাতে পারেনা সামান্যতম বদান্যতা মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানে!
স্বাধীনতা তুমি কেড়ে নিয়েছ ৩ লক্ষ মা-বোনের সম্ভ্রম,
যারা আজ সমাজের সাধারণ মানুষের মন জোগাতে অক্ষম!
স্বাধীনতা তুমি ১ কোটি মানুষকে করেছিলে ভিটেমাটি ছাড়া,
যারা নিজ দেশে পরবাসী, দেশ গড়ার কাজে দেয়নি সাড়া!
স্বাধীনতা তুমি দিয়েছ মুক্তিযোদ্ধাদের ক্ষুধার যন্ত্রণা,
শেষ বয়সে ২০০০/= টাকার সম্মানী ভাতা নেয়ার শান্তনা!
স্বাধীনতা তুমি মুক্তিযুদ্ধের দালালদের করেছ পূনর্বাসন,
তাইতো মুক্তিযোদ্ধারা হয়েছে সমাজ থেকে নির্বাসন!
স্বাধীনতা তুমি দেশের সাধারণ মানুষকে দিওনা কষ্ট,
কালের চক্রে বাংলার শত্রু যুদ্ধাপরাধীদের করতে তুষ্ট!
স্বাধীনতা তুমি হরণ করেছ মুক্তিযোদ্ধাদের জীবনের মান,
তাইতো তারা সমাজে রাখতে পারছেনা তাদের কাঙ্খিত সম্মান!

রজনীগন্ধা
তারিখ : ০১/০৭/২০১২

তোমার সুবাসে মানুষ জেগে উঠে শিশিরে শুভ্রগন্ধে
এতো সুগন্ধে উদ্ভাসিত মানুষের হৃদয় মহানন্দে!
মনের মাধুরী দিয়ে হৃদয় জুড়ানো সুবাস তোমার কোমল কলিতে
ভেসে উঠে মহাসৌরভে মানুষের মনে শিল্পীর তুলিতে!
জীবন মানে পার্থিব বিষয়ে কিছু সময়ের অহংকার
প্রকৃতির অমোঘ নিয়মে তা ভেঙ্গে হয়ে যায় চুরমার!
তোমার সান্নিধ্যে এসে মানুষ ভুলে যায় জীবনের সকল অনাচার
তাইতো পথিক দাঁড়ায় তোমার বাগানের আঙ্গিনায় সচরাচর!
তোমার সুবাস বাতাসে মানুষের মন হয়ে যায় ধন্য
তাইতো তোমার দুয়ারে এসে মানুষের জীবন হয় পুণ্য!
তুমি সুগন্ধ ছড়িয়ে দাও মানুষের বুকের আঙ্গীনায়
যাতে সুদ্ধ হয়ে যায় এ ধরার মানুষের হৃদয় মহামহিমায়!
তোমার ভালবাসায় সচল বিশ্বের মানুষের জীবন তরী
তুমি মানুষের হৃদয়ে থাকবে চিরকাল, সুগন্ধ পরী!
তোমাকে নিয়ে তৈরী মানুষের বাগানে তুমিই অহংকার
মনের অজান্তে প্রেমের বাঁধনে ছাড়িয়ে ঝংকার!
তোমার সৌরভ ছড়িয়ে পড়–ক সারা বিশ্বে- মহাসমারোহে
তোমার সুগন্ধে মানুষ জেগে উঠুক আনন্দে, জাগ্রত প্রহরে!
মানুষের কামিনী হৃদয় জুড়ানো তোমার সুগন্ধ গৌরব
চিরকাল বেঁচে থাক, ছড়িয়ে দিতে মানুষের হৃদয়ে শুভ্র সৌরভ!

পোস্ট করেন- শামীমুল আহসান, ঢাকা ব্যুরো প্রধান
দৈনিক রাঙামাটি। তারিখ- ১০ মার্চ ২০১৭