রাঙামাটিতে আরো একজনের মৃত্যু ॥ দেশে বেড়েই চলেছে করোনায় মৃতের সংখ্যা

3178

॥ সৌরভ দে ॥
মহামারি করোনা ভাইরাসে দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। রোববার রাতে রাঙামাটিতে আরো একজন কভিড রোগীর মৃত্যু হয়। একই দিন ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে ৩৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৬ হাজার ৩৮৮ জনে। আর রাঙামাটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৫ জনে।

রোববার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেওয়া তথ্যমতে সারা দেশে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে আরও ২ হাজার ৬০ জনের দেহে। এ নিয়ে মোট শনাক্ত হলো ৪ লাখ ৪৭ হাজার ৩৪১ জন করোনা রোগী।

স্বাস্থ্য বিভাগের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী রোববার (২২ নভেম্বর) রাঙামাটিতে ১৯টি নমুনা সংগৃহীত হয়েছে। এর মধ্যে দুইজন করোনা পজেটিভ। যার মধ্যে রাঙামাটি সদর হতে ১জন ও কাপ্তাই উপজেলা হতে ১জন। নির্ভরযোগ্য সূত্র হতে নিশ্চিত হওয়া গেছে যে, রোববার রাঙামাটি সরকারি কলেজ আইসোলেশন সেন্টারে চিকিৎসাধীন থাকা একজন কভিড রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে দেওয়া সূত্র বলছে রাঙামাটি জেলার সর্বশেষ করোনা পরিস্থিতি হলো ঃ মোট সংগৃহীত নমুনাঃ ৪,৪৮০; মোট প্রাপ্ত নমুনার ফলাফলঃ ৪৪৭৮; মোট করোনা পজেটিভঃ ৯২৯; মোট করোনা নেগেটিভঃ ৩৫৪৯; মোট মৃত্যুঃ ১৫ জন; অপেক্ষমান নমুনার ফলাফলঃ ২।

এদিকে রোববার (২২ নভেম্বর) বিকেলে করোনাভাইরাস নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, এ দিন সুস্থ হয়েছেন ২ হাজার ৭৬ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন ৩ লাখ ৬২ হাজার ৪২৮ জন। এর আগে শনিবার (২১ নভেম্বর) দেশে আরও ১ হাজার ৮৪৭ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়। এছাড়া আক্রান্তদের মধ্যে মারা যান আরও ২৮ জন। সংস্থার অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এদিকে করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের সংখ্যা ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, রোববার সকাল পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫ কোটি ৮৪ লাখ ৮৭ হাজার ৭৫৪ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১৩ লাখ ৮৬ হাজার ৩৩৪ জনের।

সুস্থ হয়েছেন ৪ কোটি ৪ লাখ ৬৪ হাজার ৩৭৭ জন। এছাড়া, ২৪ ঘণ্টায় করোনায় নতুন করে মৃত্যু হয়েছে ৮ হাজার ৯২২ জনের এবং একই সময়ে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ লাখ ৮১ হাজারের বেশি মানুষ।

বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে, ২ লাখ ৬১ হাজার ৭৯০ জন। বিশ্বে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যাও এই দেশটিতে। বিশ্বের ক্ষমতাধর এ দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ২৪ লাখ ৫০ হাজার ৬৬৬ জন আক্রান্ত হয়েছেন। দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হয়েছেন ৯০ লাখ ৯৫ হাজার ৯০৮ জন এবং মারা গেছে ১ লাখ ৩৩ হাজার ২৬৩ জন।
তৃতীয় অবস্থানে থাকা লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত করোনায় ৬০ লাখ ৫২ হাজার ৭৮৬ জনের বেশি মানুষ সংক্রমিত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৬৯ হাজার ১৬ জনের। চতুর্থ অবস্থানে থাকা ফ্রান্সে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ২১ লাখ ২৭ হাজার ৫১ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন ৪৮ হাজার ৫১৮ জন।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৯টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯। এখন খুব দ্রুত গতিতে বিশ্বে করোনার সেকেন্ড ওয়েব ছড়িয়ে পড়ছে। অথচ করোনা সংক্রমণের ক্ষিপ্র-অগ্রগতি নিয়ে বেশিরভাগ মানুষের তেমন কোনো মাথাব্যাথা নেই। অথচ দেশে এখনও সাপ্তাহিক পরীক্ষার তুলনায় কোভিড-১৯ শনাক্তের হার ২০ শতাংশের বেশি।