সোমবার থেকে পার্বত্য চট্টগ্রামে শুরু হচ্ছে তিনদিনব্যপী মাউন্টেইন বাইক প্রতিযোগীতা

213

॥ রাঙামাটি রিপোর্ট ॥
সোমবার থেকে পার্বত্য চট্টগ্রামে শুরু হচ্ছে তিনদিনব্যপী মাউন্টেইন বাইক প্রতিযোগীতা। সারা দেশের এক শ’ বাইকার পাহাড়ের আঁকাবাঁকা পথে সাইকেলিংয়ের মাধ্যমে তিনদিন পাহাড়ের মানুষকে মাতিয়ে রাখাবে। মেঘের রাজ্য সাজেক থেকে শুরু হয়ে বান্দরবানের থানচি গিয়ে শেষ হবে এই বাইকিং।

তিনদিনে এ বাইকাররা পাহাড়ের তিন শ’ কিলোমিটার পথে সাইকেল চালাবে। নারী-পুরুষ মিলিয়ে এক শ’ বাইকারের মধ্যে তিন পার্বত্য জেলা থেকে ৪৫ জন প্রতিযোগী অংশ গ্রহণ করছে। মূলত পাহাড়ের তরুণদের সাইকেলিংয়ে উৎসাহিত করার লক্ষ্যেই এ আয়োজন বলে জানিয়েছে আয়োজকরা। জানানো হয়ে এ প্রতিযোগীতার মূল উদ্দেশ্য পাহাড়ের স্থানীয় জন গোষ্ঠীকে মাউন্টেইন পরিবেশ বান্ধব ও সাশ্রয়ী বাইকের সাথে পরিচিত করানো এবং নিরাপদ ও টেকসই বাহন হিসেবে মাউন্টেইন বাইককে পরিচিত করানো।

মুজিব বর্ষ সামনে রেখে এবার এই প্রতিযোগীতার নাম দেওয়া হয়েছে, ‘বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০’ মুজিব বর্ষের শেষ লগ্নে এসে পাহাড়ের এ জমজমাট আয়োজন ঘিরে ইতোমধ্যে সারাদেশে এবং পাহাড়ের মানুষের মাঝে বিপুল উৎসাহ সৃষ্টি হয়েছে। তিনদিনের এ প্রতিযোগীতায় প্রায় সাড়ে সাতলক্ষ টাকা প্রাইজ মানিসহহ অন্ত অর্ধকোটি টাকা ব্যয় হবে জানিয়েছে এ্ আয়োজনের মূল দায়িত্বে থাকা পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড।

এ আয়োজন সম্পর্কে পাহাড়বাসিকে জানাতে বুধবার (২৩ ডিসেম্বর) বিকালে রাঙামাটিস্থ পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের প্রধান কার্যালয়ের কর্ণফুলী সম্মেলন কক্ষে প্রেস কনফারেন্স আয়োজন করা হয়। উন্নয়ন বোার্ডের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নূরুল আলম নিজামী’র সভাপতিত্ব্ েউক্ত প্রেস কনফারেন্সে উপস্থিত ছিলেন- পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের সদস্য প্রশাসন ও সদস্য সচিব আশীষ কুমার বড়ুয়া, সদস্য পরিকল্পনা ড. প্রকাশ কান্তি চৌধুরী, সদস্য বাস্তবায়ন মোহাম্মদ হারুন-অর-রশীদ, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি, বাংলাদেশ অ্যাডভেঞ্চার ফাউন্ডেশনের প্রতিনিধি, রাঙামাটি প্রেস ক্লাবের সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন রুবেল, সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার আল হক, বিভিন্ন সাংবাদিক সংগঠনের প্রতিনিধি, প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার প্রতিনিধিসহ বোর্ডের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ।

ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নূরুল আলম নিজামীর সভাপতিত্বে প্রেস কনফারেন্সে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সদস্য পরিকল্পনা ড. প্রকাশ কান্তি চৌধুরী। লিখিত বক্তব্য পাঠকালে তিনি বলেন- সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপনের কর্মসূচি হিসেবে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ব্যবস্থাপনায় এবং বাংলাদেশ অ্যাডভেঞ্চার ফাউন্ডেশন, পার্বত্য জেলা পরিষদ, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, বিজিবি, জেলা প্রশাসন, পুলিশ বিভাগসহ বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি সংস্থার সহযোগিতায় বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০ আয়োজন করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০কে সফল করার জন্য ইতোমধ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের তত্ত্বাবধানে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড সুনির্দিষ্ট কার্যক্রম গ্রহণ করেছে। তম্মধ্যে প্রেস কনফারেন্স অন্যতম। দেশ ব্যাপী এ কার্যক্রমের গুরুত্ব ও তাৎপর্য তুলে ধরার লক্ষ্যে সরকারি-বেসরকারিভাবে ক্ষুদে বার্তার মাধ্যমে প্রচারের জন্য ব্যাপকভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

প্রধান উদ্দেশ্যসমূহঃ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপনে পাহাড়ে নতুন মাত্রা সংযোজন। পার্বত্য চট্টগ্রাম অঞ্চলে অ্যাডভেঞ্চার ক্রীড়া পর্যটনকে অগ্রসর করা। স্থানীয় জনগোষ্ঠীকে মাউন্টেইন বাইকের সাথে পরিচিতকরণ। আন্তর্জাতিক পরিম-লে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের সুযোগ সৃষ্টি করা। নতুন প্রজন্মকে শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্য বিকাশে সক্ষমতা বৃদ্ধি। নিরাপদ ও টেকসই বাহন হিসেবে মাউন্টেন বাইককে পরিচিতকরণ। পরিবেশ বান্ধব ও সাশ্রয়ী বাহন হিসেবে মাউন্টেন বাইক এর প্রচলন। মাদকমুক্ত সমাজ গড়া।

কর্মমসূচির মধ্যে থাকছে ২৮ ডিসেম্বর ২০২০, সোমবার উদ্বোধনী অনুুষ্ঠানঃ এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন তথ্য মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি। সভাপতিত্ব করবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ সফিকুল আহম্মদ। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলার সংসদ সদস্য ও খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি দীপংকর তালুকদার এমপি, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার সংসদ সদস্য ও উপজাতীয় শরণার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্স এর চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য মিজ্ বাসন্তী চাকমা। এছাড়া আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে রাঙামািিট রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ ইফতেকুর রহমান, পিএসসি, খাগড়াছড়ি রিজিয়ন কমান্ডার  ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ ফয়জুর রহমান, এজিপি এএফডব্লিউসি, পিএসসি, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মংসুইপ্রু চৌধুরী, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অংসুইপ্রু চৌধুরী, রাঙামাটি বিজিবি সেক্টর সদর দপ্তরের সেক্টর কমান্ডার কর্নেল এ এস এম ফয়সাল, উপ মহাপরিচালক, সেক্টর কমান্ডার, বিজিবি, খাগড়াছড়ি বিজিবি সেক্টর সদর দপ্তরের সেক্টর কমান্ডার কর্নেল মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম  বিজিবিএম,পিবিজিএম, রাঙামাটি পার্বত্য জেলার জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার জেলা প্রশাসক প্রতাপ চন্দ্র বিশ^াস, রাঙামাটি পার্বত্য জেলার পুলিশ সুপার মোঃ আলমগীর কবির পিপিএম সেবা, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আবদুল আজিজ উপস্থিত থাকবেন।

বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০ এর মাধ্যমে তরুণ প্রজন্মকে দেশীয় বিভিন্ন ক্রীড়া ও সংস্কৃতি সম্পর্কে ধারণা অর্জন, অ্যাডভেঞ্চার ক্রীড়ার মাধ্যমে সুস্থ দেহ ও সুন্দর মনের অধিকারী জীবন যাপন এবং বিশ^ব্যাপি জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রতিক্রিয়া কমিয়ে আনতে উৎসাহিত করা। এ দীর্ঘ পাহাড়ী জনপদ তথা আঁকা বাঁকা পাহাড়ী পথ বাইসাইকেলে অতিক্রম করার মধ্য দিয়ে এক অন্যরকম ক্রীড়া অ্যাডভেঞ্চারের অভিজ্ঞতা অর্জন করবে।

বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০ আয়োজনের তারিখ ও কর্মসূচিঃ
রুট ম্যাপঃ সাজেক থেকে ভায়া খাগড়াছড়ি, রাঙামাটি ও বান্দরবান পার্বত্য জেলা
আঞ্চলিক রোড অনুষ্ঠানসূচি, ক্যাম্পের স্থানঃ সাজেক, রাঙামাটি, বান্দরবান ও থানচি।

প্রথম দিন-প্রথম ধাপঃ ২৮ ডিসেম্বর ২০২০, সোমবার (সকাল ৮টা, সাজেক থেকে রাঙ্গামাটি চিং হ্লা মং চৌধুরী মারী স্টেডিয়াম -১৩০ কিঃমি)

দ্বিতীয় দিন-দ্বিতীয় ধাপঃ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০, মঙ্গলবার (সকাল ৮ টা, রাঙ্গামাটি চিং হ্লা মং চৌধুরী মারী স্টেডিয়াম থেকে বান্দরবান স্টেডিয়াম-৯০ কিঃমি)

তৃতীয় দিন-তৃতীয় ধাপঃ ৩০ ডিসেম্বর ২০২০, বুধবার (সকাল ৮টা, বান্দরবান স্টেডিয়াম থেকে থানচির সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠ-৮০ কিঃমি)

অংশগ্রহণকারী
বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০তে তিন পার্বত্য জেলা থেকে ৪৫ (পঁয়তাল্লিশ) জন এবং দেশের অন্যান্য জেলা থেকে ৫৫ (পঞ্চান্ন) জনসহ সর্বমোট ১০০ (একশত)জন ক্রীড়াপ্রেমী সাইক্লিস্টস অংশগ্রহণ করবেন।

সমাপনী দিন (৩য় দিন) ঃ থানচি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সমাপনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। এতে বিভাগীয় ও অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে পুরস্কার ও সম্মাননা বিতরণ করা হবে।

সমাপনী অনুুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি। সভাপতিত্ব করবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব সফিকুল আহম্মদ। বিশেষ/আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্য শৈ হ্লা, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নূরুল আলম নিজামী, বান্দরবান পার্বত্য জেলার রিজিয়ন কমান্ডার ও ব্রিগেড কমান্ডার ৬৯ পদাতিক ব্রিগেড, সেক্টর সদর দপ্তর বান্দরবানের সেক্টর কমান্ডার কর্নেল গাজী নাহিদুজ্জামান, পিএসসি, বান্দরবান পার্বত্য জেলার জেলা প্রশাসক, বান্দরবান পার্বত্য জেলার পুলিশ সুপার জেরিন আখতার পিপিএম।

পুরস্কারঃ ৭ লক্ষ টাকা মূল্যের সমপরিমাণ পুরস্কার বিজয়ীদের মধ্যে বিতরণ করা হবে। চ্যাম্পিয়নঃ ৩ লক্ষ টাকা, প্রথম রানারআপঃ ২ লক্ষ টাকা, দ্বিতীয় রানারআপঃ ১ লক্ষ টাকা, বিশেষ পুরস্কারসমূহঃ ১.৫০ লক্ষ টাকা। এছাড়া সফল প্রতিযোগীদের সবাইকে-সার্টিফিকেট, মেডেল/ক্রেস্ট প্রদান করা হবে।

লিখিত বক্তব্য পাঠের পর উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নূরুল আলম নিজামী বঙ্গবন্ধু ট্যুর ডি সিএইচটি এমটিবি চ্যালেঞ্জ ২০২০ সম্পর্কে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন।