কাপ্তাইয়ে যুবলীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর ব্যানার ছেঁড়ার ঘটনায় নিন্দা

39

॥ কাপ্তাই প্রতিনিধি ॥
বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে কাপ্তাই নতুন বাজারস্থ কাপ্তাই-চট্টগ্রাম সড়কের পাশে টাঙানো ব্যানার ছেঁড়ার ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছে নেতাকর্মীরা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ বিষয়ে গত কয়েকদিন ব্যাপক আলোচনা লক্ষ করা যাচ্ছে। কাপ্তাইয়ের উপজেলা থেকে শুরু করে ইউনিয়ন পর্যন্ত আ.লীগ ও তার অঙ্গ সংগঠনের বেশিরভাগ নেতাকর্মী এ ঘটনার নিন্দা জানিয়ে দোষীদের খুঁজে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান।

কাপ্তাই ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. সালাউদ্দিনের অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, গত ১০ই নভেম্বর বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে নতুন বাজারস্থ কাপ্তাই-চট্টগ্রাম সড়কের পাশে একটি ব্যানার টাঙানো হয়। গত শুক্রবার পর্যন্ত ব্যানারটি টাঙানো অবস্থায় থাকলেও শনিবার সকালে ব্যানাটি ছেঁড়া ও টুকরো টুকরো অবস্থায় দেখা যায়। পরে দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে আলাপ করলে থানায় ডায়েরী করার পরামর্শ দেন। শনিবারই কাপ্তাই থানায় এ বিষয়ে একটি সাধারণ ডায়েরী করেছি (জিডি নং- ৫৩০)।

কাপ্তাই উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম খলীল জানান, হাইব্রীডদের প্রতিহিংসায় বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের কাপ্তাই ইউনিয়ন শাখার সভাপতি/সম্পাদক অবমানিত হয়নি, অবমাননা করা হয়েছে বাঙ্গালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে, জননেত্রী দেশরত্ম শেখ হাসিনাকে, পাহাড়ি বাঙ্গালী ঐক্যের প্রতীক জননেতা দীপংকর তালুকদার এমপিকে, অবমাননা করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনকে।

কাপ্তাই উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি এম নূর উদ্দিন জানান, কাপ্তাই উপজেলা যুবলীগ ও কাপ্তাই ইউনিয়ন যুবলীগসহ সিনিয়র নেতৃবৃন্দের প্রতি আহবান থাকবে যারা দলীয় ব্যানার ছেঁড়ার মতো জঘন্যতম অপরাধ করেছে তাদের খুঁজে বের করে শাস্তির ব্যবস্থা করা হোক। এটাকে নিয়া কেউ নোংরামি করে প্রকৃত আসামীকে বাঁচানোর পায়তারা করতে না পারে সেদিকে সজাগ থাকার আহবান জানাচ্ছি।

কাপ্তাই উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক তানভির আহম্মেদ জানান, যুবলীগের কেউ যদি এতে জড়িত থাকে তাহলে তার বিরুদ্ধে কঠিন ব্যাবস্থা নেওয়া হবে। ইতিমধ্যে বিষয়টি কারা কারা ঘটিয়েছে তাদের খোঁজার চেষ্টা চলছে।

কাপ্তাই থানা অফিসার ইনচার্জ মো. নাছির উদ্দিন জানান, এ বিষয়ে একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।