রাঙামাটি ও বান্দরবানে স্বাস্থ্য সহকারীদের সংবাদ সম্মেলন

425

 

॥ স্টাফ রিাপোর্টার ॥ রাঙামাটি ও বান্দরবানে সাংবাদিক সম্মেলন করেছে বাংলাদেশ হেলথ এসিসট্যান্ট এসোসিয়েশন। স্বাস্থ্য সহকারীদের পদ আপ-গ্রেডেশনের মাধ্যমে বেতন বৈষম্য নিরসনের দাবিতে শুক্রবার এই সংবাদ সম্মেলন করে তারা। সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, স্বাস্থ্য সহকারীরা পার্বত্য অঞ্চলের দুর্গম এলাকাগুলোতে গিয়ে শিশু ও মাতৃমৃত্যু হ্রাস, যক্ষা, ধনুষ্টংকার, ডায়রিয়া, ম্যালেরিয়া নিয়ন্ত্রণ, সংক্রামক অসংক্রামক ব্যাধি নিয়ন্ত্রণ, অন্ধত্ব দূরীকরণে স্বাস্থ্য সহকারীরা তৃণমূল পর্যায়ে সফল ও দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করে আসছে। কিন্তু তাদের নতুন আপ গ্রেডেশনের আওতায় আনা হয়নি। এতে বেতন বৈষম্য থাকায় স্বাস্থ্য সহকারীদের উপর অবিচার করা হচ্ছে।  তারা আগামী ৩১শে মার্চের মধ্যে দাবি বাস্তবায়নের সুস্পষ্ট ঘোষণা দাবি করেন, অন্যথায় ১লা এপ্রিল জাতীয় প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে কর্মবিরতিসহ বৃহত্তর কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে বলে হুশিয়ারী উচ্চারণ করা হয়।

বাংলাদেশ হেলথ এসিসট্যান্ট এসোসিয়েশন রাঙামাটি জেলা সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নাছির উদ্দিন স্বাক্ষরিত লিখিত বক্তব্যে আরো বলা হয়, দীর্ঘদিন থেকে স্বাস্থ্য সহকারীরা টেকনিক্যাল পদমর্যাদার দাবী করে আসলেও সরকার তা বাস্তবায়ন না করায় পদমর্যাদা সহ চরম বেতন বৈষম্যের শিকার হচ্ছেন। চাকুরীক্ষেত্রে বিদ্যমান বৈষম্য তুলে ধরতে সারাদেশের জেলা শহরগুলোতে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ হেলথ এসিসট্যান্ট এসোসিয়েশন।

এদিকে বান্দরবানের সাংবাদিক সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন বান্দরবান জেলা হেল্থ এসিসট্যান্ট এসোসিয়েশন সভাপতি শহিদুল ইসলাম টিপু। এ সময় সংগঠনের বান্দরবান জেলা হেল্থ এসিসট্যান্ট এসোসিয়েশন সাধারণ সম্পাদক মিথুন কুমার বড়–য়া, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুল আলম কাকন, সদর উপজেলার সভাপতি হেলেন প্রু মারমা, সদস্য কহিনুর আক্তার চুমকি। এসময় বক্তারা বলেন, মাঠ পর্যায়ে স্বাস্থ্যকর্মীরা অক্লান্ত পরিশ্রম করে মা-শিশুসহ গণমানুষের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় কাজ করে যাচ্ছেন। কিন্তু তাদের মুল্যায়ন করা হয় না।